1. admin@dwiptv.com : dwiptv.com :
  2. dwiptvnews2121@gmail.com : sub editor : sub editor
বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২, ০৮:৪৩ অপরাহ্ন

কুমিল্লায় বৃদ্ধা ভিক্ষুকের বসতঘরে হামলা ভাংচুর ও লুটপাট করার অভিযোগ

রবিউল হোসাইন সবুজ, স্টাফ রিপোর্টার (কুমিল্লা)
  • আপডেট: সোমবার, ২০ ডিসেম্বর, ২০২১
কুমিল্লায় বৃদ্ধা ভিক্ষুকের বসতঘরে হামলা ভাংচুর ও লুটপাট করার অভিযোগ
কুমিল্লায় বৃদ্ধা ভিক্ষুকের বসতঘরে হামলা ভাংচুর ও লুটপাট করার অভিযোগ
কুমিল্লা মনোহরগঞ্জ উপজেলায় ভিটামাটি সম্পত্তির বিরোধকে কেন্দ্র করে অসহায় এক ভিক্ষুক মহিলার বসতঘরে হামলা ভাংচুর ও লুটপাট চালিয়েছে স্থানীয় একদল সন্ত্রাসী।এ ঘটনায় ওই মহিলা বাধা দিতে গেলে তাকে প্রাননাশের হুমকি দিয়ে বাড়ির থেকে বেড় করে দেয় হামলাকারীরা। ভুক্তভোগী মহিলা জাহানারা খাতুন (৬০) উপজেলার উলুপাড়ার পন্ডিত বাড়ির মৃত আবদুল কাদেরের স্ত্রী সে এলাকার একজন ভিক্ষুক। ঘটনাটি ঘটছে রবিবার দুপুরে উত্তর হাওলা ইউনিয়নের উলুপাড়া গ্রামে। খবর পেয়ে এলাকার স্থানীয় লোকজন হামলাকারী দুই ব্যক্তিকে আটক করে গন পিটুনি দিয়ে পুলিশের কাছে সোপর্দ করেন। নাথেরপেটুয়া পুলিশ ফাঁড়ির পুলিশের সদস্যরা আটককৃত আমিনুল ইসলাম টিপু ও আবু জাফরকে থানায় আনা হয়েছে। রবিবার রাতে জাহানারা খাতুন বাদী হয়ে স্থানীয় আমিনুল ইসলাম টিপুকে ১ নাম্বার আসামী করে ৫ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেন।
অভিযোগ ও স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, উপজেলার উলুপাড়ার পন্ডিত বাড়ির মৃত আবদুল কাদেরের স্ত্রী জাহানারা খাতুনের পৈত্রিক বসত ভিটার সম্পত্তির নিয়ে একই বাড়ির মৃত আনু মিয়ার ছেলে আমিনুল ইসলাম টিপুর মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধের চলে আসছে। ওই পৈত্রিক সম্পত্তির মধ্যে গত কয়েক বছর পূর্বে জাহানারা খাতুনকে বসবাসের জন্য স্থানীয় চেয়ারম্যান ও এলাকায় কয়েকজন ব্যক্তির তাদের অর্থ দিয়ে একটি ঘর নির্মাণ করে দেয়। অসহায় জাহানারা খাতুন বিভিন্ন এলাকায় ঘুরে ভিক্ষা করে মানুষের কাছ থেকে সহযোগিতা পেয়ে জীবন বাঁচান। রবিবার সকালে পাশের বাড়ীর মিনি নামে এক মহিলা তিনি জাহানারা খাতুনকে ভাতার কার্ড করে দিবে বলে ঘর বন্ধ করে দুইজন মনোহরগঞ্জ উপজেলার চলে যায় । সবার অজান্তে দুপুরে আমিনুল ইসলাম টিপুর নেতৃত্বে ১৫/২০জন সন্ত্রাসীরা দেশি অস্ত্র সশস্ত্র নিয়ে ও মহিলার বাড়িতে হামলা করে।
হামলাকারীরা এসময় বসতঘর, টয়লেট রান্নাঘর, টিউবওয়েল ও আসবাবপত্র ভাংচুর চালায়। খবর পেয়ে স্থানীয়জনতা দুই হামলাকারীকে আটক করে গন ধোলাই দেয়। অপর হামলা কারীদেরকে আটক করার চেষ্টা চালালে টের পেয়ে তারা পালিয়ে যায়। ভুক্তভোগী জাহানারা খাতুন জানান. পৈত্রিক বাড়ির সম্পত্তির মালিক আমি। আমিনুল ইসলাম টিপু এ সম্পত্তি মালিক দাবি করে বিভিন্ন সময় আমার উপর নির্যাতন চালায়। সম্পত্তি বিরোধ জের ধরে স্থানীয় ভাবে বিচার সালিশও হয়েছে। সে সালিশ ধরবার অমান্য করে আমার উপর জোর জুলুম করে।আমি অসহায় এক মহিলা আমার কেউ নাই সারাদিন ঘরে ঘরে মানুষের কাছ থেকে টাকা পয়সা ও চাউল ডাউল এনে খেয়ে বেছে আছি।
গত ৭/৮ বছর আগে বর্তমান চেয়ারম্যান ও কয়েকজন স্থানীয় ব্যক্তি থাকার জন্য একটি নতুন ঘর, টয়লেট, টিউবওয়েল ও রান্নাঘর নির্মিত করে দিয়েছে। আজ দুপুরে বাজার থেকে বাড়ীতে এসে দেখলাম সন্ত্রাসী আমিনুলের নেতৃত্বে বহিরাগত লোকজন এনে আমার সবকিছু ভাংচুর ও লুটপাট করেছে। আমি এখন কোথায় যাবো কোথায় থাকবো খাবো কি। স্থানীয় চেয়ারম্যান এম এ হান্নান হিরন বলেন, খবর পেয়ে অসহায় মহিলার বাড়ীতে গিয়েছিলাম, তাহার বসতঘরে হামলা চালিয়ে সব ভাংচুর করা হয়েছে, কিছুই রাখলো না হামলাকারীরা ।রাতে এ বিষয় জানতে চাইলে নাথেরপেটুয়া পুলিশ ফাঁড়ির ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাফর ইকবাল বলেন, জাহানারা বাদী হয়ে ৫ জনকে আসামি করে মামলা করা হয়েছে। আটককৃত দুই আসামিকে মনোহরগঞ্জ থানার সহযোগিতায় আদালতে ফেরন করা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ পড়ুন

আমাদের এন্ড্রয়েড এপস আপনার মোবাইলে ইন্সটল করুন।

Developer By Zorex Zira